স্টুডেন্ট অনলাইন ইনকাম- ঘরে বসে টাকা আয়

স্টুডেন্ট অনলাইন ইনকাম- ঘরে বসে টাকা আয়

স্টুডেন্ট অনলাইন ইনকাম – আমাদের দেশে এমন অনেক স্টুডেন্ট আছে যারা টাকার কারনে নিজের পড়ালেখার খরচ চালাতে পারছেনা। অথচ তাদের প্রখর মেধা রয়েছে। আর বর্তমান যুগে টাকা ছাড়া নিজের মেধাকে বিকশিত করা খুবই কঠিন বলতে গেলে অসম্ভব। আর তাই অনেক ছাত্ররাই আছে যারা অনলাইন ইনকাম করে টাকা আয় করতে চায়। আজকে আমি সেইসব স্টুডেন্টদের জন্য কিছু অনলাইন ইনকামের পদ্ধতি বলে দেবো।

আর আপনি যদি সেইসব স্টুডেন্টদের মধ্যে একজন হয়ে থাকেন তাহলে আমারতো পোস্টটি ভালোভাবে পড়বে। আজকের এই পোস্টের মাধ্যমে আমি এমন কিছু অনলাইন ইনকামের উপায় বলে দেবো যার মাধ্যমে আপনি প্রচুর টাকা আয় করতে পারবেন। যার মাধ্যমে আপনি আপনার লেখাপড়ার খরচ এর পাশাপাশি অন্যান্য ক্ষেত্রেও খরচ করতে পারবেন।

এছাড়াও আপনি আপনার অবসর সময় কাজে লাগাতে পারবেন। কথায় আছে অলস মস্তিষ্ক শয়তানের আড্ডাখানা। আর স্টুডেন্ট জীবনে বেশিরভাগ সময়ই অবসর থাকে তাই বখাটে বন্ধুদের সাথে না মিশিয়ে সময়টাকে কাজে লাগিয়ে টাকা ইনকাম করা শতগুণে ভালো। তাহলে চলুন জেনে নেয়া যাক স্টুডেন্টদের অনলাইন ইনকামের উপায় গুলো।

স্টুডেন্টের অনলাইন ইনকাম করার কিছু উপায়

স্টুডেন্টের জন্য অনলাইন ইনকাম করার অনেক উপায় আছে। আর এগুলো শুধু স্টুডেন্ট দের জন্যই নয় বড় মানুষ ও করতে পারবে। এই কাজগুলো অত্যন্ত সহজ । কিন্তু কাজগুলো করতে একটু ধৈর্যের প্রয়োজন। আর আমরা সকলেই জানি যে ধৈর্যের ফল সবসময় ভালো হয়। ধৈর্য ধরে এই কাজগুলো করলে স্টুডেন্ট থেকে শুরু করে সবাই ভালো টাকা ইনকাম করতে পারবে।

টাকা ইনকাম করার সহজ উপায় বাংলাদেশে

আজকে আমি আপনাদেরকে স্টুডেন্টদের অনলাইন ইনকাম করার কিছু সোর্স বলে দেব। যেমন : ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে টাকা আয়, অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর মাধ্যমে টাকা আয়, ব্লগিং করে টাকা আয়, কনটেন্ট রাইটিং করে টাকা আয়, অনলাইন টিউটর হিসেবে কাজ করে টাকার, ফাইবার থেকে টাকা আয় ইত্যাদি। তাহলে  এই কাজগুলো করে আপনি কিভাবে টাকা আয় করবেন তা জেনে নিন।

ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে টাকা আয় করার উপায়

বর্তমানে টাকায় করার একটি জনপ্রিয় মাধ্যম হল ইউটিউব চ্যানেল। বাংলাদেশের প্রায় অসংখ্য মানুষ ইউটিউব ব্লগিং করে প্রচুর টাকা ইনকাম করছে। কারণ ইউটিউব ব্লগিং করে বিপুল পরিমাণ টাকা ইনকাম করা যায়। আপনি যদি ইউটিউব থেকে বিপুল পরিমাণ অর্থ উপার্জন করতে চান তাহলে আপনাকে কিছু শর্ত মানতে হবে নিচে শর্তগুলো দিয়ে দেয়া হয়েছে ।

মোবাইল দিয়ে টাকা আয় – টাকা আয় করার app

আশা করি আপনি জানেন যে youtube চ্যানেলের কাজ কি মূলত ভিডিও আপলোড দেওয়া। অনেকেই ভাবে যে মানুষ তার ভালোলাগার জন্য নিজের প্রাত্যহিক জীবনের ভিডিওগুলো আপলোড করে থাকে। তবে সত্যিকার অর্থে বিষয়টা সত্য না। কারণ মূলত এই ভিডিওগুলো আপলোড দেওয়া হয় টাকা ইনকামের উদ্দেশ্যে। আর ইউটিউব চ্যানেলের মাধ্যমে টাকা আয় করা অত্যন্ত সহজ। কারণ আপনি ঘরে বসেই আপনার নিত্য দিনের ভিডিও গুলো আপলোড করার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করতে পারবেন এর থেকে সহজ অনলাইন ইনকাম আর দুটো হয় না।

*** ভিডিও ব্লগিংয়ের প্রথম শর্ত হলো আপনি কারো ভিডিও কপি করতে পারবেন না। কারণ অন্যের ভিডিও কপি করলে আপনি কখনোই ইউটিউব থেকে টাকা ইনকাম করতে পারবেন না।

***দ্বিতীয়তঃ আপনার চ্যানেলে কমপক্ষে ৪০০০ ঘন্টা ওয়াচ টাইম এবং ১০০০ জন নিয়মিত গ্রাহক থাকতে হবে।

***এছাড়াও আপনার ভিডিও যত দীর্ঘ হবে আপনার উপার্জন ও তত বাড়তে থাকবে।

***এক ডলার থেকে শুরু করি আপনি প্রচুর টাকা ইনকাম করতে পারবেন ইউটিউব থেকে।

***তবে হ্যাঁ আপনি তখনই ইনকাম শুরু করতে পারবেন যখন থেকে আপনার চ্যানেলে ন্যূনতম ১০ হাজার গ্রাহক এবং পেইড স্পন্সারশীপ থাকবে।

অনলাইনে পণ্য বিক্রি – প্রতিদিন 5000 টাকা আয় করুন

অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং এর মাধ্যমে টাকা আয় করার উপায়

বর্তমানে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং একটি খুবই লাভজনক অনলাইন ইনকাম হিসেবে কাজ করছে। এটি অনলাইন ইনকাম করার খুবই জনপ্রিয় একটি সোর্স বা উৎস। অনেকেই এই এফিলিয়েট মার্কেটিং করে টাকার করছে। আপনিও যদি এফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে জানতে চান তাহলে আমার দেওয়া পোস্টটি ফলো করুন। এফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে দিয়ে দিয়েছি জেনে নিতে পারেন।

***এফুয়েট মার্কেটিং মূলত অনলাইন ই-কমার্স কোম্পানি গুলোর বিভিন্ন পণ্য প্রচার করে সাধারণ মানুষের কাছে বিক্রি করা।

***আপনি যে কোম্পানির পণ্যগুলো বিক্রি করে দিচ্ছেন সেই কোম্পানি আপনাকে তার পণ্য বিক্রয় করার বিনিময়ে কিছু কমিশন দিবেন। এফিলিয়েট মার্কেটিং এর কাজ।

***উক্ত কোম্পানি আপনাকে অ্যাফিলিয়েট মার্কেটিং সম্পর্কে ধারণা দিয়ে দিবে অথবা আপনি আলাদাভাবে শিখে নিতে পারেন।

আশা করি আপনি হ্যাপি আসিলিয়েট মার্কেটিং করে কিভাবে টাকা আয় করা যায় তা বুঝতে পেরেছেন।

কিভাবে ফেসবুক থেকে টাকা আয় করা যায়

ব্লগিং করে টাকা আয় করার উপায়

ব্লগিং করে টাকা ইনকাম করা অত্যন্ত সহজ। কারণ ব্লগারদের কাজ সম্পূর্ণ মেধা ভিত্তিক। আপনার মেধাকে কাজে লাগিয়ে আপনি টাকা ইনকাম করতে পারবেন। এক্ষেত্রে কিছু শর্ত প্রযোজ্য। যেমন :-

***ব্লগিং করতে হলে আপনাকে সর্বপ্রথম একটি ব্লগিং সাইট নিতে হবে। আর যেখানে আপনি আপনার মেয়ে থাকে কাজে লাগিয়ে আপনার কিছু জ্ঞান মানুষের সাথে শেয়ার করার মাধ্যমে বিপুল পরিমাণ টাকা আয় করতে পারবেন।

***আপনি যদি জানতে চান যে ব্লগিং করে কত টাকা আয় করা যায় তাহলে আমি বলব আপনি যদি ধৈর্য ধারণ করে আপনার কাজ করেন তাহলে আপনি লক্ষ টাকা পর্যন্ত ইনকাম করতে পারবেন।

***আপনার ব্লগ গুলো যত ভালো হবে আপনার ইনকাম তত ভালো হবে।

***সত্যি কথা বলতে টাকা ইনকাম করার জন্য ব্লগিং সাইট সর্বোত্তম ও সেরা পদ্ধতি ।কারণ এ পদ্ধতির মাধ্যমে আপনি বিপুল পরিমাণ অর্থ আয় করতে পারবেন ঘরে বসেই।

কনটেন্ট রাইটিং হিসেবে কাজ করে অনলাইনে টাকা আয় করার উপায়

কনটেন্ট রাইটিং এর কাজ মূলত বিভিন্ন ওয়েবসাইটে আর্টিকেল লিখে ইনকাম করা। বর্তমানে এমন অনেক ব্লগিং ওয়েবসাইট রয়েছে যেখানে আর্টিকেল লেখার মাধ্যমে টাকা ইনকাম করা যায়। আর স্টুডেন্টদের জন্য এটি একটি অত্যন্ত ভালো পন্থা বলে আমি মনে করি। কারণ ছাত্রদের লেখালেখির অভিজ্ঞতা সবচেয়ে ভালো থাকে। যেহেতু কনটেন্ট রাইটিং এ মূল কাজ হল লেখালেখি সেহেতু ছাত্রের জন্য অনলাইনে ইনকাম করার সবচেয়ে সহজ একটি পথ এটি।

টাকা আয় করার Apps – প্রতিদিন 3000 টাকা আয় করার Apps

***অন্যান্য কাজগুলোর থেকে কন্টেন্ট রাইটিং করে সবচেয়ে বেশি টাকা ইনকাম করা যায়।

***এক্ষেত্রে আপনি দিনে ২ থেকে ৩ ঘন্টা সময় দিলে ই আর্টিকেল লিখতে পারবেন।

***প্রতিটি আর্টিকেলে ১০০০ থেকে ১৫০০ শব্দ লেখার মাধ্যমে চার থেকে সাত ডলার পর্যন্ত ইনকাম করা যায়।

আশা করি আপনি কনটেন্ট রাইটিং এর কাজ বুঝতে পেরেছেন।

টিউটর হিসেবে কাজ করে অনলাইন ইনকাম করার উপায়

বিভিন্ন ধরনের টিউটর ওয়েবসাইট রয়েছে। যেগুলোতে সাধারণত হাজার হাজার ছাত্ররা বিভিন্ন কিছু শেখার জন্য আসে। টিউটর ওয়েবসাইট গুলোর মধ্যে রয়েছে :-Tutor me,Tutor vista, Tutor.com ইত্যাদি।

***এই ওয়েবসাইট গুলোতে কাজ করার মাধ্যমে আপনি অনলাইনে টাকা ইনকাম করতে পারবেন।

***এই কাজগুলো করার ক্ষেত্রে অবশ্যই আপনার মেধাবৃত্তিক কিছু জ্ঞান থাকতে হবে। তবে আপনি টিউটর ওয়েবসাইটে কাজ করতে পারবেন।

Maimuna Khan

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *