স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তির উপায় – এলার্জি থেকে মুক্তির ঔষধ

স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তির উপায় – এলার্জি থেকে মুক্তির ঔষধ

স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তির উপায় – আমাদের অনেকেরই শরীরে এলার্জি রয়েছে। আমরা সকলেই চাই এই এলার্জি থেকে মুক্তি পেতে। এলার্জি থেকে নিরাপদে থাকা যায়। আমরা অনেকেই জানিনা এলার্জি কেন হয়। এলার্জি জনিত কারণে শরীরের চুলকানি হয়। তাছাড়া এলার্জি জনিত কারণে অনেকের ঠান্ডা সহজে কমেনা।

এলার্জি সারানোর কিছু উপায় রয়েছে। আজ আমি আপনাদের এলার্জি থেকে মুক্তি পাওয়ার উপায় সম্পর্কে জানাবো। যদিও এলার্জি থেকে শতভাগ মুক্তি পাওয়া যায় না। তবে এ এলার্জি থেকে নিরাপদে থাকা যায়।

এলার্জি জনিত কারণে মানুষের শরীরে হরমোন ও অন্যান্য জিনিসের উপর দারুণভাবে পরী লক্ষিত হয়। তাছাড়া ডাক্তাররা এলার্জি সারানোর জন্য বিভিন্ন ধরনের ঔষধ, ক্রিম বা লোশন দিয়ে থাকে। চলুন জেনে নেয়া যাক কিভাবে এলার্জি থেকে চিরতরে মুক্তি পাওয়া যায়।

স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তির উপায়

স্কিন এলার্জি বর্তমানে মানুষের জীবনের একটি নিত্যদিনের রোগ। স্কিন এলার্জি স্কিনের রোগ। স্কিন এলার্জি হলে স্কিনে লাল ফোসকা পড়ে। যার ফলে স্কিন দেখতে অত্যন্ত বাজে লাগে। আপনি যদি এই স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তি পেতে চান তাহলে আপনাকে ধুলোবালি হতে দূরে থাকতে হবে।

ধুলাবালি ও অপরিষ্কার পানি স্কিন এলার্জির জন্য দায়ী। তাই আপনি যদি ধুলাবালি ও অপরিষ্কার পানি হতে দূরে থাকতে পারেন তাহলে স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তি পাবেন। তাছাড়া বিভিন্ন ধরনের খাবার যেমন চিংড়ি মাছ, কচু, পুঁইশাক, ইলিশ মাছ, গরুর মাংস, শুটকি মাছ, বেগুন স্কিন এলার্জির জন্য দায়ী।

কেননা এসব খাবারে প্রচুর পরিমাণে এলার্জি থেকে থাকে। এসব খাবার খেলে শরীরে এলার্জি বেড়ে যায়। তাই আপনি যদি অস্বাস্থ্যকর পরিবেশ ও উপরোক্ত বর্ণনা কৃত খাবার থেকে দূরে থাকতে পারেন তাহলে স্কিন এলার্জি থেকে মুক্তি পাবেন। এটাই স্কিন এলার্জি থেকে নিরাপদে থাকার উপায়।

আরো পড়ুন – গেম খেলে টাকা ইনকাম করার অ্যাপস – গেম খেলে টাকা আয় করুন

এলার্জি কি?

শরীরে চুলকানি জনিত রোগ কে অ্যালার্জি বলা হয়। এলার্জি হলে নানা ধরনের সমস্যা হয়ে থাকে। যেমন চুলকানি হওয়া, লালভাব দৃশ্যমান হওয়া, শরীরের বিভিন্ন জায়গায় ফুলে যাওয়া, নাক চোখ বা মুখে চুলকানি হয়, সর্দি বা নাক বন্ধ হয়ে যাওয়া ইত্যাদি। কত কত মানুষের এলার্জির কারণে সারা বছর ঠান্ডা লেগে থাকে। যা মানুষের জীবনে ভীষণভাবে অস্বাস্থ্যকর পরিবেশ করে তুলে।

এলার্জির প্রাথমিক চিকিৎসা

এলার্জির প্রাথমিক চিকিৎসা হিসেবে আপনি কিছু খাবার এড়িয়ে চলতে পারেন। এছাড়াও আপনাকে এলার্জি থেকে মুক্তি পেতে ধুলোবালি হতে দূরে থাকতে হবে। এলার্জিজনিত খাবার যেমন: চিংড়ি মাছ, কচু, পুঁইশাক, ইলিশ মাছ, গরুর মাংস, শুটকি মাছ, বেগুন খাওয়া থেকে বিরত থাকতে হবে।

ত্বকের এলার্জির ঔষধ

অনেক মানুষেরই ত্বকের এলার্জি রয়েছে। ত্বকের এলার্জি হতে মুক্তি পাওয়ার জন্য তারা বিভিন্ন ডাক্তারের পরামর্শ নিয়ে থাকে। অনেক মানুষ আছে যারা এই থেকে উপকৃত হয় আবার অনেকে আছে যাদের এর ব্যতিক্রম হয়।

স্কিন এলার্জি ঔষধের নাম

তাই যারা এলার্জি থেকে মুক্তি পেতে চান তারা স্কিনে পেভিসন মলম ব্যবহার করতে পারেন। এটি চুলকানি দূরীকরণে একটি গুরুত্বপূর্ণ মলম। এটি চুলকানির রোগের জন্য খুবই উপকারী।
তাছাড়া ওরাডিন নামে একটি একটি ঔষধ আছে যা এলার্জির ওষুধ হিসেবে পরিচিত। ওরাডিন খেলে খুবই দ্রুত চুলকানি জনিত এলার্জি সেরে যায়। তাই যাদের চুলকানি ও এলার্জি রয়েছে তারা ওরাডিন ঔষধটি খেতে পারেন।

এলার্জির ঔষধ বেশি খেলে কি হয়

আমরা সকলেই জানি যে অতিরিক্ত কোন কিছুই ভাল নয়। তেমনি অতিরিক্ত ওষুধ খাওয়া ঠিক নয়। অতিরিক্ত ঔষধ খেলে রোগ সারাতে দূরের কথা এর পার্শ্ব প্রতিক্রিয়া দেখা দেয়।
এর ফলে সে ভিন্ন কোন রোগে আক্রান্ত হতে পারে। এলার্জির ঔষধ বেশি খাওয়া উচিত নয়। এটি বেশি খেলে আপনি ভিন্ন কোন রোগে আক্রান্ত হতে পারেন। তাই অতিরিক্ত এলার্জির ঔষধ খাওয়া থেকে বিরত থাকুন।

Maimuna Khan

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *