মৃত্যু নিয়ে কিছু কবিতা , উক্তি, স্ট্যাটাস

মৃত্যু নিয়ে কিছু কবিতা , উক্তি, স্ট্যাটাস

আসসালামু আলাইকুম, আশা করি আপনারা সবাই অনেক ভালো আছেন। আজকে আমরা আপনাদের সামনে নতুন একটি বিষয় নিয়ে চলে এলাম। বিষয়টি হলো এমন একটি বিষয় যা প্রত্যেকটি জীবের জন্য অনিবার্য। যা থেকে কোন জীব বাচতে পারবেনা। আর তা হলো মৃত্যু আর এই মৃত্যু থেকে কেউ কখনো বাঁচতে পারেনি ও পারবে না।

তো চলুন আর দেরি না করে এ বিষয়ে পোষ্ট টি শুরু করা যাক। আগেই বলে রাখি এ বিষয়টি এমন একটি সেনসিটিভ বিষয় নিয়ে কোন মজা করার জায়গা নেই। তাই এখানে কোন মজার স্ট্যাটাস কবিতা প্রযোজ্য নয়। এজন্য আমরা খুবই ভেবেচিন্তে কিছু মৃত্যু নিয়ে কবিতা, উক্তি ও স্ট্যাটাস নিজের চলে এলাম।

মৃত্যু নিয়ে কিছু কবিতা

মৃত্যু হল এমন একটি বিষয় যা নিয়ে কোন মজা করার জায়গা নেই। তাই আমরা অনেক কষ্টে ভেবেচিন্তে বেছে বেছে এ বিষয়ে পোস্ট লিখেছি। আপনি যদি চান তবে অবশ্যই পোস্টটি পড়ে কিছু শিখতে পারবেন। পোস্টটি পড়লে অবশ্যই আপনি কিছু শিখতে পারবেন এবং অন্যকে এ বিষয়ে শেখাতে পারবেন। তাই আর দেরি না করে আজকের মৃত্যুর বিষয়ে কবিতা এই পোস্টটি শুরু করা যাক।

কত মানুষই না মৃত্যুবরণ করে হারিয়ে যায়,

কিন্তু এই পৃথিবী তবুও থেমে যায়।

সে কিন্তু ঠিক মতোই তার নিজের গতিতে চলে যায়।

 

কিছুই থামে না এই পৃথিবীতে, না থামে সূর্য-না থামে চাঁদ

কারো জন্য কোনদিন কেউ থেমে থাকবে না আর আজ।

থামবে এক এক করে সবার সেই মহা মূল্যবান নিঃশ্বাস।

Link – মনুষ্যত্ব নিয়ে উক্তি , কবিতা , ফেসবুক স্ট্যাটাস , ক্যাপশন

যতই হও তুমি টাকাওয়ালা বড় ধনী

হওবা তুমি চোর বাটপার ধরিবাজ চালাক।

যতই তুমি পালাও সেই পৃথিবীর এক কোণে

একদিন ওই মৃত্যু তোমায় ঠিক লইবে ঘিরে।

 

থেকে কিছুই কারো জন্য অপেক্ষা করে রয়ে যাচ্ছে,

একজন চলে যাচ্ছে তো আরেকজন ফিরে আসছে।

কিন্তু মনে রেখো তুমি মরণ ঠিকই তোমার জন্য ঘনিয়ে আসছে।

মৃত্যু নিয়ে ইসলামিক উক্তি

মৃত্যু হচ্ছে এমন একটি বিষয় যা কখনোই পেরিয়ে যাওয়া সম্ভব নয়। তাই কখনো মৃত্যুকে ভয় পেতে নেই। কিন্তু মৃত্যুর কথা চিন্তা করে ধর্মীয় পথে চলা তাই হচ্ছে। ইসলামের ভাষায় মৃত্যুর পরে আরও একটি জীবন রয়েছে। তাই শুধু জীবনেই কিছু না করে মৃত্যুর পরবর্তী জীবনের জন্যই করার চেষ্টা করা উচিত বেশি। তবে আপনি মৃত্যুর আগে ও পরে উভয় জায়গাতেই শান্তি ও সুখ লাভ করতে পারবেন। তো চলুন ইসলামিক সেই মৃত্যু নিয়ে উক্তি গুলো জেনে নেওয়া যাক।

” মরণ তো একদিন আসবেই, তাই উচিত মৃত্যুকে ভয় না পাওয়া

মৃত্যুকে ভয় না পেয়ে তার জন্য প্রস্তুতি নেয়াটাই হচ্ছে উত্তম।

আর মৃত্যুর জন্য সবচেয়ে সেরা প্রস্তুতি হচ্ছে ঈমানদার হওয়া।”

 

“এই পৃথিবীতে সবচেয়ে বড় হতভাগা সেই,

যে মারা যাওয়ার পর তার পাপ কাজ গুলো রয়েই যায়।”

 

“জন্মের পর, আমরা সবাই একটি বিষয়ে সুনিশ্চিত

আর সেটি হল আমাদের মৃত্যু, কিন্তু আমরা সেই বিষয়েই সবচেয়ে বেখবর।

আমাদের উচিত মৃত্যুকে বরণ করে নেয়ার মত কাজ করে যাওয়া।

অর্থাৎ ইসলামের পথে নিজের জীবন পরিচালনা করা।”

মৃত্যু নিয়ে ফেসবুক স্ট্যাটাস

মৃত্যুকে এড়ানো এ পৃথিবীর কারো পক্ষে সম্ভব নয়। যদিওবা সবাই সে বিষয়ে কোনো খেয়ালই করে না। তবে সেটা হচ্ছে সবচেয়ে বড় সত্যি। এটাকে আমাদের সবাইকে মেনে নিতেই হবে। মৃত্যু সবাই ভুলে যায় বলে তা মানুষকে মনে করিয়ে দেওয়া একটি উত্তম কাজ। মৃত্যুর কথা মনে করলেই মানুষ খারাপ কাজ থেকে বিরত থাকবে।

এই মৃত্যুকে মানুষের মাঝে মনে করিয়ে দেওয়ার সবচেয়ে ভালো উপায় হচ্ছে স্ট্যাটাস। তাই আপনি চাইলে যে কাউকে ফেসবুকের মাধ্যমে বিভিন্ন স্ট্যাটাস শেয়ার করতে পারেন। এর ফলে সে সেই স্ট্যাটাস দেখে কিছুটা হলেও মৃত্যুর কথা মনে করবে এবং খারাপ কাজ হতে বিরত থাকার চেষ্টা করবে। এতে করে আপনার দ্বারা হাজারো মানুষ উপকৃত হতে পারে। তো চলুন তাহলে সে সকল মৃত্যু নিয়ে ফেসবুক স্ট্যাটাস গুলো দেখে নেওয়া যাক।

আপনি যদি একটি ভালো সুখী জীবন আশা করতে চান,

তবে অবশ্যই আপনি মনে রাখবেন আপনাকে একদিন মৃত্যুবরণ করতে হবে।

 

মৃত্যু কখনো মানুষের বড় ক্ষতি করতে পারে না,

মানুষের বড় ক্ষতি তখনই হয় যখন সে বেঁচে থেকেও মরে যায়।

 

আপনারা যারা জন্ম এবং মৃত্যু কে বিপরীত ধর্মি মনে করেন,

আমি বলব তারা সম্পূর্ণ ভুল বলে থাকেন।

কারণ মৃত্যু হল জীবনেরই একটা অংশ।

 

আশা করি আপনারা সবাই লেখাটি পড়ে উপকৃত হবেন। যদি পোস্টটি আপনার ভালো লেগে থাকে তবে অবশ্যই পোষ্টটি আপনার বন্ধুদের মাঝে শেয়ার করে দেবেন। এরকম নতুন নতুন ইউনিক লেখাগুলো দেখতে হলে আমাদের সঙ্গেই থাকবেন। কারণ আমরা নিয়মিত এ ধরনের লেখা লিখে থাকি। এ লেখাটি বিষয়ে আপনার কোন প্রশ্ন থাকলে অবশ্যই আমাদের কমেন্টের মাধ্যমে জানাবেন। এতক্ষণ আমাদের সঙ্গে থাকার জন্য আপনাকে অসংখ্য ধন্যবাদ।

আরো পড়ুন: ছেলেদের কষ্টের স্ট্যাটাস

গভীর প্রেমের কবিতা – হাসির ছন্দ কবিতা

কষ্টের স্ট্যাটাস বাংলা

Maimuna Khan

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *