২৬ শে মার্চের কবিতা

২৬ শে মার্চের কবিতা

২৬ শে মার্চের কবিতা । আজকের এই পোস্টটি আপনি 26 শে মার্চের সেরা বিখ্যাত কিছু কবিতা পেয়ে যাবেন। আমরা সকলেই জানি আজকের এই দিনে অর্থাৎ 26 শে মার্চ বাংলাদেশ স্বাধীন হয়েছিল। মহান মুক্তিযুদ্ধের মাধ্যমে আমাদের এই দেশ স্বাধীনতা লাভ করে। স্বাধীনতা অর্জনের জন্য বাংলাদেশকে অনেক ত্যাগ স্বীকার করতে হয়েছে। সেই সাথে প্রাণ দিতে হয়েছে অসংখ্য তাজা প্রাণের। অসংখ্য প্রাণের বিনিময়ে আমরা পেয়েছি আজকের এই স্বাধীনতা।

তাই মহান স্বাধীনতা দিবস উপলক্ষে আমরা আপনাদের জন্য নিয়ে এসেছি 26 শে মার্চের কিছু গুরুত্বপূর্ণ এবং বিখ্যাত কবিতা। যেগুলো শুনলে আপনার শরীরের লোম সোজা হয়ে যাবে। কেননা সকল কবিতার মাহাত্ম্য অনেক। কেননা আপনি শুধু শুনেছেন এইভাবে মুক্তিযুদ্ধ হয়েছিল। কিন্তু এই মুক্তিযুদ্ধে যেরকম কষ্ট হয়েছিল তার কোনো ধারনাই আপনার নেই। চলুন কথা না বাড়িয়ে বিখ্যাত সকল 26 মার্চের কবিতা দেখে নেই।

২৬ শে মার্চের কবিতা

আজকে আমি বলব শুধু, যুদ্ধ জয়ের কথা।

যার সুবাদে পেয়ে গেছি সাধের স্বাধীনতা।

দাদু বলে নয়কো মোটে নয়কো সহজ বটে,

স্বাধীনতা এল জানি , রক্তমাখা রথে।

স্বাধীনতার শত্রু যারা , তাদের পায়াভারি,

চলো সবাই মিলে ওদের , তারাই তাড়াতাড়ি।

নইলে বাগান উজাড় হবে , ফুটবেনা ফুল।

এক নিমিষেই বিরান হবে , খির নদীর কূল।

সার্থক জনম আমার , জন্মেছি এই দেশে।

সার্থক জনম মাগো , তোমায় ভালোবেসে।

জানিনা তোর ধনরতন , আছে কিনা রানীর মতন,

শুধু জানি আমার অঙ্গ জুড়ায় , তোমার ছায়ায় এসে।

কোন বনেতে জানিনে ফুল , গন্ধে আমায় করে আকুল,

কোন ভুবনে ওঠেরে চাঁদ , এমন হাসি হেসে।

আঁখি মেলে তোমার আলো , প্রথম আমার চোখ জুড়ালো।

ওই আলোতে নয়ন রেখে , জুরবা সবশেষে।

সার্থক জনম আমার জন্মেছি এই দেশে।

বল বীর-
বল উন্নত মম শির!
শির নেহারি আমারি,
নত-শির ওই শিখর হিমাদ্রীর!

বল বীর –
বল মহাবিশ্বের মহাকাশ ফাড়ি’
চন্দ্র সূর্য্য গ্রহ তারা ছাড়ি’
ভূলোক দ্যুলোক গোলক ভেদিয়া,
খোদার আসন ‘আরশ’ ছেদিয়া
উঠিয়াছি চির-বিস্ময় আমি বিশ্ব-বিধাত্রীর!
মম ললাটে রুদ্র-ভগবান জ্বলে রাজ-রাজটীকা দীপ্ত জয়শ্রীর!

বল বীর –
আমি চির-উন্নত শির!
আমি চিরদুর্দ্দম, দুর্বিনীত, নৃশংস,
মহা-প্রলয়ের আমি নটরাজ, আমি সাইক্লোন, আমি ধ্বংস,
আমি মহাভয়, আমি অভিশাপ পৃথ্বীর!

আমি দুর্ব্বার,
আমি ভেঙে করি সব চুরমার!
আমি অনিয়ম উচ্ছৃঙ্খল,
আমি দ’লে যাই যত বন্ধন, যত নিয়ম কানুন শৃংখল!
আমি মানি নাকো কোনো আইন,
আমি ভরা-তরী করি ভরা-ডুবি, আমি টর্পেডো, আমি ভীম,

ভাসমান মাইন!
আমি ধূর্জ্জটী, আমি এলোকেশে ঝড় অকাল-বৈশাখীর!
আমি বিদ্রোহী আমি বিদ্রোহী-সূত বিশ্ব-বিধাত্রীর!

Maimuna Khan

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *